খাগড়াছড়িতে স্বাস্থ্যসেবার মানোন্নয়নের চাই সমতা,জবাবদিহিতা ও অংশগ্রহণ বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত: ১১:০৫ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৭, ২০২২

খোকন বিকাশ ত্রিপুরা জ্যাক,খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি:

খাগড়াছড়ি জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরাম ও জাবারাং কল্যাণ সমিতি,খাগড়াছড়ি কর্তৃক আয়োজিত বাংলাদেশ হেল্থ ওয়াচ এর সহযোগিতায় স্বাস্থ্যসেবার মানোন্নয়নের চাই সমতা,জবাবদিহিতা ও অংশগ্রহণ বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
সোমবার(১৭জানুয়ারি)দুপুরে জাবারাং রিসোর্স এন্ড ট্রেনিং সেন্টার অডিটোরিয়ামে এ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়।কর্মশালায় জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরাম(ডিএইচআরএফ)’র সভাপতি সাধন কুমার চাকমা’র সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা সিভিল সার্জন নুপুর কান্তি দাশ।

কর্মশালায় জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরাম’র যুব বিষয়ক সম্পাদক মোঃ শাহাদাত হোসেন কায়েস’র সঞ্চলনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেলা স্বাস্থ্য অধিকার ফোরাম’র সাধারণ সম্পাদক ও জাবারাং কল্যাণ সমিতি’র নির্বাহী পরিচালক মথুরা বিকাশ ত্রিপুরা।তিনি তাঁর স্বাগত বক্তব্যে বলেন, স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করা আমাদের সকলের দায়িত্ব ও কর্তব্য।আমরা নিজেরাই স্বাস্থ্য সম্পর্কে জানবো,অন্যদেরকেও জানাবো।তার জন্য প্রথমে আমাদের কমিউনিটি পর্যায়ে স্বাস্থ্য বিষয়ক ওয়ার্ড সভা, সচেতনতামূলক স্বাস্থ্যসেবা বিষয়ে সেমিনার করতে হবে। তাহলে একদিন আমাদের বাংলাদেশ স্বাস্থ্য সেবার পরিপূর্ণতা পাবে।

পরিকল্পনা কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিভিল সার্জন নুপুর কান্তি দাশ বলেন,স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করতে হলে আমাদের উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে কমিউনিটি ক্লিনিক, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কেন্দ্রগুলোতে যে সকল কমিউনিটি সেবা গ্রহণ করে থাকে তাদের স্বাস্থ্য সেবার উপকারীতা বিষয়ে জানাতে এবং তা পালনে অনুরোধ করতে হবে।

অন্যান্য বক্তারা বলেন,স্বাস্থ্যের অধিকার ফোরাম’র একটি দিক সম্বন্ধে ধারণা করার জন্য স্বাস্থ্য সেবার উপর পরিকল্পনা কর্মশালা নানান বিষয়ে বিশদভাবে আলোচনা করা প্রয়োজন। এতে স্বাস্থ্য সেবা গ্রহীতা ও দাতা উভয়ের অধিকারই স্বাস্থ্য সেবা সরবরাহ ব্যবস্থার অন্তর্ভুক্ত থাকে।স্বাস্থ্যসেবা সরবরাহের ক্ষেত্রে রোগীর যেসব অধিকার অন্তর্গত থাকে: নিরাপত্তার অধিকার, তথ্যের অধিকার, জীবনের নিশ্চয়তা, মানসম্মত সেবা এবং বৈষম্য, নির্যাতন ও নিষ্ঠুর, অমানবিক বা অবনতিমূলক চিকিৎসা থেকে মুক্তি।প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর নারী, যৌন, সংখ্যালঘু ও এইচআইভি আক্রান্ত ব্যক্তিদের অধিকার বিশেষত স্বাস্থ্য-সেবা ব্যবস্থায় সুরক্ষিত নয়। স্বাস্থ্য খাতে কমিউনিটি ক্লিনিকগুলো অবকাঠামো উন্নয়নের আহ্বান জানান বক্তারা।

এ সময় জেলা সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা.রিপল বাপ্পি চাকমা জেলা আধুনিক সদর হাসপাতালের কার্যক্রমসমূহ বিস্তারিত তুলে ধরেন।

পরে স্বাস্থ্য বিষয়ে বিস্তারিত উপস্থাপন করেন বাংলাদেশ হেল্থ ওয়াচ’র প্রোগ্রাম অফিসার (নেটওয়ার্কিং এন্ড
লিঁয়াজো)রাজেশ কুমার অধিকারী,বাংলাদেশ হেল্থ ওয়াচ’র ফিল্ড অপারেশন ও কো-অর্ডিনেটর
শশাংক বরন রায়।
এতে অংশ নেন মহালছড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ধনিষ্টা চাকমা,মহালছড়ি উপজেলার স্বাস্থ্য অধিকার।ফোরামের সহ-সভাপতি সুইনুপ্রু চৌধুরী,সহ-সভাপতি (নারী) ভৌমিকা ত্রিপুরা,এছাড়াও কর্মশালায় অংশ নেন ডিস্ট্রিক্ট ইয়ুথ ফোরাম ফর হেল্থ রাইটস যুগ্ম-সমন্বয়কারী ডালিয়া ত্রিপুরা,যুগ্ম-সমন্বয়কারীঅজয় দাশ,গণমাধ্যম সম্পাদক খোকন বিকাশ ত্রিপুরা জ্যাক,সদস্য খলেন জ্যোতি ত্রিপুরাসহ আরো অনেকে।