পদ্মাসেতুর টোল আদায়ের দায়িত্ব পাচ্ছে দুই বিদেশী কোম্পানি

প্রকাশিত: ১২:৪৯ পূর্বাহ্ণ, এপ্রিল ৮, ২০২২

পদ্মা বহুমুখী সেতুর রক্ষণাবেক্ষণ ও টোল আদায়ের জন্য দুইটি কোম্পানিকে পাঁচ বছরের জন্য নিয়োগ দিয়েছে বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষ।
পদ্মাসেতুর রক্ষণাবেক্ষণ ও টোল আদায় কার্যক্রম পরিচালনার জন্য সার্ভিস প্রোভাইডার হিসেবে যৌথভাবে দায়িত্ব পাচ্ছে কোরিয়া এক্সপ্রেসওয়ে করপোরেশন এবং চায়না মেজর ব্রিজ ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানি লিমিটেড।

গত বৃহস্পতিবার [৭ এপ্রিল] সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে সেতু কর্তৃপক্ষের এই নিয়োগ প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

পদ্মাসেতুর জন্য এই দুই কোম্পানিকে নিয়োগ দেওয়াসহ এদিন বৈঠকে মোট ১১টি প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি। এতে মোট ব্যয় হবে ১ হাজার ৮০৭ কোটি ৮৩ লাখ টাকা। এর মধ্যে কেইসি ও এমবিইসি’কে নিয়োগের ক্রয়প্রস্তাবে খরচ হবে ৬৯২ কোটি ৯২ লাখ টাকা।

বৈঠক থেকে অর্থমন্ত্রী অনুমোদিত ক্রয়প্রস্তাবগুলোর কথা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, বৈঠকে পিপিপি’র আওতায় চট্টগ্রামে ‘বে-টার্মিনাল’ নির্মাণে আন্তর্জাতিক পরামর্শক প্রতিষ্ঠান নিয়োগে চট্টগ্রাম বন্দর কর্তৃপক্ষের একটি প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এখানে পরামর্শক হিসেবে নিয়োগ পেয়েছে কোরিয়ার দুই প্রতিষ্ঠান কুনহুয়া ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড কনসালটিং কোম্পানি লিমিটেড ও দেইয়াং ইঞ্জিনিয়ারিং কোম্পানি লিমিটেড। এতে ব্যয় হবে ১২৬ কোটি ৪৯ লাখ ৭৩ হাজার টাকা।

অর্থমন্ত্রী জানান, বৈঠকে পানি উন্নয়ন বোর্ডের অধীন রাজশাহী জেলার চারঘাট ও বাঘা উপজেলায় পদ্মা নদীর বাম তীরের স্থাপনা ভাঙন থেকে রক্ষার একটি প্রকল্পের ড্রেজিংয়ের পূর্ত কাজের একটি প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। যৌথভাবে এ কাজটি করবে এক্যুয়া মেরিন ড্রেজিং লিমিটেড ও নবারুণ ট্রেডার্স লিমিটেড। এতে ব্যয় হবে ২৭ কোটি ৪৪ লাখ ৭৪ হাজার টাকা।