ভাইবোনছড়ায় প্রজেক্ট উই’র সমীকরণ সেমিনার অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত: ১১:৩৯ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৫, ২০২১

খোকন বিকাশ ত্রিপুরা জ্যাক,খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি:

ভাইবোনছড়ায় রঞ্জন মনি পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রজেক্ট উই’র সমীকরণ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে।এতে প্রতিপাদ্যের বিষয় ছিল,’নারী পুরুষ ভেদে,সমতা আনয়নে’।সেমিনারে রঞ্জন মনি পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ধনাচন্দ্র সেন’র সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভাইবোনছড়া মিলেনিয়াম উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক তাতু মনি চাকমা।
সমীকরণ সেমিনারে বক্তারা বলেন ,এই সেমিনারটির মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা নতুন স্বপ্নের পথে অগ্রসর হবে এবং ভবিষ্যতে আরো এরকম সেমিনার করার আহ্বান জানিয়েছেন।

এসময় সেমিনার আয়োজক পরান্তি চাকমা বলেন,“ আমি কৃতজ্ঞ Project we টিমের প্রত্যেক সদস্যের প্রতি, বিশেষ করে “Event Planning Team’র হেড “আনন্যা চৌধুরী দিদির প্রতি যিনি এ সেমিনারটি বাস্তবায়নে আমাকে সর্বাধিক সাহায্য করেছেন। আমার এলাকার তারুণ্য শক্তিকে জাগ্রত করার এরকম শিক্ষা প্রোগ্রাম এর সুযোগ সৃষ্টি করে দেয়ার জন্য এবং সেসব মানুষের প্রতি যারা আমার এই সেমিনারে উপস্থিত থেকে সেমিনারটি সাফল্যমন্ডিত করতে সাহায্য করেছেন, বিশেষ করে স্বেচ্ছাসেবকবৃন্দ,অত্র বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক – শিক্ষিকাবৃন্দ,অবশ্যই আমার মা-বাবা সকলের নিকট কৃতজ্ঞ এবং আশীর্বাদ প্রার্থনা করছি যাতে আমরা জাতি,সমাজ এবং দেশের জন্য আরো অনেক ভালো কিছু করতে পারি আমার স্বেচ্ছাসেবকদের নিয়ে। তবে এটি শেষ নয়, শুরু মাত্র স্বপ্নচারীদের নিয়ে এ পথ চলা।

Project We’র প্রজেক্ট হেড অর্ণিশা বিশ্বাস বলেন,“ বর্তমানে প্রজেক্ট উই এর সাথে শতাধিক মানুষ সরাসরি কাজ করছে।দেড় বছরে আমাদের আয়োজিত ইভেন্ট এর সংখ্যা ২০ এর কাছাকাছি”।

এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্র শতীষ চাকমা,৫ নং ভাইবোনছড়া ইউনিয়ন পরিষদের মহিলা সংরক্ষিত আসনের সদস্য করুণাময়ী চাকমাবঙ্গবন্ধু জাতীয় কৃষি পুরস্কার রৌপ্য পদক প্রাপ্ত ও কৃষি উদ্যোক্তা সুজন চাকমা, ৮০ জন শিক্ষার্থীসহ শিক্ষক-শিক্ষিকা,এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিসহ ১০০ জনের অধিক এ সেমিনারে উপস্থিত ছিলেন।

জানা যায়,দূরদর্শী দৃষ্টিভঙ্গি নিয়ে সমকালীন সমাজ ও পরিপ্রেক্ষিত বিশ্লেষণ করে উদীয়মান তারুণ্যকে সঠিক দিক-নির্দেশনা দিয়ে তাদের মধ্যে আশা-জাগানো, ভরসার ক্ষেত্র তৈরি করা,স্বপ্নচারী হওয়ার অনুপ্রেরণা দেওয়া, তাদের আগ্রহ ও উদ্যমকে বোঝার চেষ্টা করে প্রচেষ্টার মাধ্যমে তাদেরকে শিক্ষামূখী করার উদ্দেশ্যে বাংলাদেশের পার্বত্য চট্টগ্রামে প্রথম বারের মতো “Project We” এর অ্যাম্বাসেডর ও নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের স্নাতক ৩য় বর্ষের ছাত্রী পরান্তি চাকমা’র উদ্যোগে ১০ জন সেচ্ছাসেবক নিয়ে এ কার্যক্রম পরিচালনা করেন।এতে আরো প্রতিপাদ্যের ছিল, ‘শিক্ষার আলোয় মুছে যাক,মনের যতো আধাঁর আলো,শিক্ষার মর্যাদা বৃদ্ধি পায়,জ্বালায় মনের আলো”।

উল্লেখ যে,প্রজেক্ট উই’র অফিশিয়াল কাজ শুরু হয় ২৮ মে ২০২০ সালে। প্রজেক্ট উই কাজ করে থাকে নারীদের আর্থসামাজিক উন্নয়নে। এখন পর্যন্ত প্রায় ১ হাজার নারীকে এ সেবার আওতায় আনতে সক্ষম হয়েছে। নারী শিক্ষা, পিরিয়ড কালীন স্বাস্থ্য সুরক্ষা, সাবলম্বী করা ইত্যাদি বিভিন্ন উদ্দ্যেশ্যে সামনে রেখে প্রজেক্ট হেড অর্ণিশা বিশ্বাস এবং এমডি উজ্জল সাহা’র উদ্যোগে এ যাত্রা শুরু হয়।