ইউক্রেন অভিযানে ৫০০ রুশ সেনা নিহতঃ মস্কো

প্রকাশিত: ১১:৪৪ পূর্বাহ্ণ, মার্চ ৩, ২০২২

ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে অগ্রসর হচ্ছেন রাশিয়ার সেনারা।
ইউক্রেনে চলমান বিশেষ সামরিক অভিযানে এখন পর্যন্ত কতজন রুশ সেনা হতাহত হয়েছেন, প্রথমবারের মতো তার হিসাব দিয়েছে রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রাণলয়ের ভাষ্য মতে ইউক্রেন অভিযানে রুশ সেনা ৪৮৪ জন নিহত হয়েছেন এবং আহত হন ১ হাজার ৫৯৭ জন

এত দিন ইউক্রেন অভিযানে রুশ সেনাদের হতাহত হওয়ার কথা মস্কো স্বীকার করে নিলেও তারা সুনির্দিষ্ট কোনো সংখ্যা উল্লেখ করেনি। এবারই প্রথম রুশ সেনাদের হতাহত হওয়ার সুনির্দিষ্ট সংখ্যা উল্লেখ করল মস্কো।

একই সঙ্গে রাশিয়া দাবি করেছে, চলমান সামরিক অভিযানে ইউক্রেনের ২ হাজার ৮৭০ সেনা নিহত হন, আহত হয়েছেন ৩ হাজার ৭০০ সেনা। কিয়েভ অবশ্য তাদের সেনাদের হতাহত হওয়ার বিষয়ে কোনো হিসাব দেয়নি।

ইউক্রেনে রুশ সেনাদের হতাহত হওয়ার যে পরিসংখ্যান মস্কো দিয়েছে, তার কিয়েভের হিসাবের চেয়ে কম। কিয়েভের দাবি, তারা ৫ হাজার ৮৪০ রুশ সেনাকে হত্যা করেছে।
রাশিয়া-ইউক্রেন সংঘাতে সেনাদের হতাহত হওয়া নিয়ে মস্কো ও কিয়েভ যে দাবি করেছে, তা স্বাধীনভাবে যাচাই করতে পারেনি বিবিসি।

যুক্তরাজ্যের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের ভাষ্যমতে, ইউক্রেনে রাশিয়ার বহু সেনা প্রাণ হারিয়েছেন।

আগে ইউক্রেনের জরুরি সেবা বিভাগের পক্ষ থেকে বলা হয়, রাশিয়ার হামলায় জরুরি সেবা বিভাগের ১০ সদস্য নিহত হন আর বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছেন ২ হাজারের বেশি।

ইউক্রেনে রুশ আগ্রাসনের কারণে দেশটি থেকে ১০ লাখ মানুষ পালিয়ে প্রতিবেশী দেশগুলোতে আশ্রয় নিয়েছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ।

গত বৃহস্পতিবার রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ইউক্রেনে বিশেষ সামরিক অভিযানের নির্দেশ দেন। তাঁর এই নির্দেশের পরই ইউক্রেনে তিন দিক থেকে হামলা শুরু করে রুশ বাহিনী।

রুশ বাহিনী ইউক্রেনের তিন দিক থেকে হামলা জোরদার করেছে। হামলার সপ্তম দিনে গতকাল বুধবার ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভ, উত্তর-পূর্বাঞ্চলে খারকিভ, দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে মারিওপোল, উত্তরাঞ্চলের চেরনিহিভ শহরে বিমান ও গোলা হামলা বাড়িয়ে দেয় রাশিয়া। দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় বন্দরনগরী খেরসন দখলে নিয়েছে তারা। দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর খারকিভে রাশিয়ার ছত্রীসেনারা নেমে শহরটি দখল নেওয়ার চেষ্টা করছেন।